৩য় সূচিশিল্প প্রতিযোগিতার ২০১৩
আগামী ২২ মার্চ সকাল ৮টা থেকে বেলা ২টা পর্যনত্ম প্রতিযোগিতার চূড়ানত্ম পর্ব অনুষ্ঠিত হয়। চারম্নপীঠ অঙ্গনে সকাল থেকে দুপুর পর্যনত্ম অনুষ্ঠেয় চূড়ানত্ম পর্ব থেকে ১০ জন নির্বাচিত হয়। অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে প্রথম, দ্বিতীয়, তৃতীয় সহ নির্বাচিতদের ২৮ জনের জন্য রয়েছে অর্থ ও সম্মাননা স্মারক। চারম্নপীঠ অঙ্গনে এই প্রতিযোগিতা পরিদর্শনে অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন- জাপানিজ কালচারাল একাডেমীর প্রিন্সিপাল ইয়ানো রিকো, কপোতাক্ষ-জাপানের অর্গানাইজার ফাং ইয়াং জো এবং কপোতাড়্গ জাপানের সদস্য হিরোমি । চারম্নপীঠ ও ফোঁড় ক্রাফটসের উদ্যোগে এ প্রতিযোগিতায় সহায়তা করছে কপোতাড়্গ জাপান।
২৩ মার্চ যশোর জেলা পরিষদ মিলনায়তনে (বিডি হল) পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধানঅতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য ড. আব্দুস সাত্তার। ৫ টায় জেলা পরিষদ (বিডি হল) মিলনায়তনে পুরস্কার বিতরণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করবেন মাহবুব জামাল অধ্যড়্গ চারম্নপীঠ,যশোর অতিথিদের মধ্যে এ্যাঞ্জেলা গোমেজ নির্বাহী পরিচালক বাঁচতে শেখা,শহিদুল আলাম সাচ্চু অভিনেতা ও পরিচালক, ইয়ানো রিকো প্রিন্সিপাল জাপানিজ কালচারাল একাডেমী, ফাং কুয়েন জোও অর্গানাইজার কপোতাক্ষ-জাপান, ফখরে আলম কবি ও সাংবাদিক, তনুজা রহমান শ্রেষ্ঠ নারী উদ্যোক্তা, এস এম ই ফাউন্ডেশন ও ফোঁড় ক্রাফটস’র নির্বাহী পরিচালক মামুনুর রশিদ, উপস্থিত ছিলেন । গত ১৪ মার্চ শুরম্ন হওয়া এ প্রতিযোগিতায় ১৪৫ জন প্রতিযোগীর মধ্যে ৩০ জন চূড়ানত্ম মনোনয়ন পান।
কপোতাক্ষ-জাপান’র সহযোগিতায় চারম্নপীঠ ও ফোঁড় ক্র্যাফটস-এর আয়োজনে এ সূচিশিল্প প্রতিযোগিতা ২০১০ সালে শুরম্ন হয়।